You are currently viewing গজাবুরু পাহাড় – পুরুলিয়া (Gajaburu Pahar Purulia)

গজাবুরু পাহাড় – পুরুলিয়া (Gajaburu Pahar Purulia)

Gajaburu Pahar Purulia – “দেখা হয় নাই চক্ষু মেলিয়া
ঘর হতে শুধু দুই পা ফেলিয়া
একটি ধানের শীষের উপরে
একটি শিশির বিন্দু”
রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের এই লাইন গুলো যে কতখানি সত্য তা পুরুলিয়া না এলে বোঝা যাবে না ।

আরো দেখুন – পাখি পাহাড়

পুরুলিয়া জেলার আড়ষা ব্লকের অন্তর্গত গজাবুরু পাহাড়।এখানে শীতের মরসুমে প্রতি বছর কলকাতা সহ বিভিন্ন জায়গা থেকে ” Adventure & rock climbing coure ” করতে ছেলে মেয়েরা আসে। পুরুলিয়া থেকে কাঁসাই নদী ব্রিজ পেরিয়ে টামনা মোড়। সেখান থেকে ডানদিকে ঘুরে সোজা । রাস্তার চারিদিকে সবুজের সমারোহ। রাস্তার দুইধারের গাছগুলো যেন আপনাকে স্বাগত জানানোর জন্য দাঁড়িয়ে আছে। এরপর ঝুঝকা হয়ে হেসলা মোড়। এখান থেকে বামদিকে ঘুরে মহুলটাড় গ্রাম হয়ে “গজাবুরু পাহাড়” ।


ঘন সবুজে পরিবেষ্টিত গজাবুরু বুক চিতিয়ে, মাথা উঁচু করে, শিরদাঁড়া সোজা রেখে দাঁড়িয়ে আছে।
বিশ্বাস করুন পুরুলিয়ার অপার সৌন্দর্য উপভোগ করতে হলে আপনাকে অতি অবশ্যই আসতে হবে এখানে। চারিদিকে সবুজের সমারোহ, দিগন্ত বিস্তৃত পাহাড় । পাদদেশে দাঁড়িয়ে মাথা উঁচু করে তার দিকে দেখতে হয়, কারণ এই পাহাড়ের সামনের দিকটা একদম খাড়া। আবার পাদদেশের অদূরেই একটা সুন্দর জলাশয়, আমরা আদর করে লেক বলি।

এই লেকের পাশেই তাঁবু খাটিয়ে রাত্রীযাপন, দিনযাপন পাহাড়ে আর জঙ্গলে। পূর্নিমার রাতে লেকের পাশে বসে কখনও গান , কখনও চাঁদকে আড়াল করে দাঁড়িয়ে থাকা অন্ধকারে বিশাল গজাবুরুর দিকে হাঁ করে তাকিয়ে থেকে, কখনও বা স্রেফ চুপচাপ বসে থেকে তারকাখচিত আকাশের দিকে তাকিয়ে রাতের নিস্তব্ধতাকে উপভোগ করতে পারবেন ।

এই প্রকৃতির মাঝে, প্রকৃতির কাছে, প্রকৃতির সাথে কাটানো দিনগুলো আমৃত্যু আপনার স্মৃতিতে ধরা থাকবে। এখানে পৌঁছে আপনি এতটাই সম্মোহিত হয়ে যাবেন যে আমার বারবার মনে হবে আপনি হিমাচল প্রদেশ কিংবা উত্তরাখণ্ডে পৌঁছে গিয়েছেন ।
এটি অযোধ্যা পর্বত শ্রেণীর দ্বিতীয় উচ্চতম চূড়া। প্রায় ৬৭৭মিটার। পর্বতারোহীদের কাছে প্রশিক্ষণের স্বর্গরাজ্য।

Leave a Reply